• শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১১:০৩ অপরাহ্ন

শীঘ্রই মুক্তি পেতে যাচ্ছে- এ এইচ তূর্য-এর ‘‘অভিমানী বাঁকা চোখে’’

ঠাকুরগাঁও সংবাদ ডেস্ক : / ৭০ বার পঠিত
প্রকাশের সময় | শনিবার, ৭ আগস্ট, ২০২১

স্টাফ রিপোর্টার:
কথায় বলে, যিনি গাইতে জানেন তিনি গাওয়াতেও জানেন। অসংখ্য গানের ভয়েস রেকর্ড ও মিউজিক পরিচালনার কাজটি দক্ষতার সঙ্গে করতে হলে গানের রসায়ন ভালোমতো বোঝা দরকার। ভালো গান গাইতে জানলে মিউজিক হয় পাকাপোক্ত। গান সম্পর্কে মিউজিশিয়ানের ধারণা যত বেশি থাকবে গানের মিউজিক তত ভালো হবে এটাই স্বাভাবিক। এইদিক থেকে এ এইচ তূর্য একই সঙ্গে ভালো শিল্পী এবং মিউজিক আয়োজক ব্যক্তিত্ব। খুব শীঘ্রই তাঁর গাওয়া ‘‘অভিমানী বাঁকা চোখে’’ শিরোনামের একটি গান উর্বশী ফোরাম-এর ইউটিউব চ্যানেলে মুক্তি পেতে যাচ্ছে।
সম্প্রতি ভাইরাল হওয়া মেহের আফরোজ শাওন ও ফজলুর রহমান বাবু’র ‘চাঁদনী রাইতে নিরজনে’ গানটির জন্য গানের মহলে আলোচনায় চলে এসেছেন তূর্য। উর্বশী গানের সিঁড়ি’র প্রথম সিজনের প্রায় সবগুলো গানের সংগীত আয়োজন করেছেন তিনি।
এ এইচ তূর্য ছেলেবেলা থেকেই গানের সঙ্গে যুক্ত হয়েছেন। প্রথম ইসলামিক গান গাওয়া দিয়ে শুরু করেছিলেন। জাতীয় শিশু পুরস্কার প্রতিযোগিতায় অর্জন করেছিলেন প্রথম স্থান। সেসময় রেডিও’র প্রচলন বেশি ছিল। তাঁর মা রেডিও শুনতেন আর গুনগুন করে গান গাইতেন। তূর্য-এর মামা তখন গান শিখতেন। সেখান থেকে গানের প্রতি আগ্রহ জন্মে তাঁর। প্রথম মৌলিক গান ‘‘কোন আকাশের তারা মা তুই’’। গানটির গীতিকার ও সুরকার ছিলেন কুমার রণজিৎ। এটা একটা মিক্স অ্যালবাম ছিল। এটিই ছিল তূর্য-এর কম্পোজিশন করা প্রথম অ্যালবাম। ‘‘হিরণবালা’’ নামক একটি মিক্স অ্যালবামে এসআই টুটুলসহ অনেকে কাজ করেছেন। প্রায় ২৫টি মৌলিক গান গেয়েছেন তূর্য। এর মধ্যে ‘তুই বেঈমানের মুখ’ গানটি খুব জনপ্রিয় হয়েছে। তিনি মূলত সফট্ মেলোডি বেশি পছন্দ করেন। এ ধরনের আধুনিক ও মডার্ন ফোক গান করেন। সংগীত নিয়ে অনেকদূর যাওয়ার ইচ্ছা তাঁর। তিনি গান গাইতে এবং মিউজিক কম্পোজ করতে সমানভাবে ভালোবাসেন। আজীবন গান নিয়ে কাজ করার প্রত্যাশা করছেন তূর্য।
‘অভিমানী বাঁকা চোখে’ গানটি সম্পর্কে তূর্য বলেন, গানটি টিপটিপ বৃষ্টির একটি রোমান্টিক গান। খুব মজা করে গানটি গেয়েছি। আশা করছি দর্শকদের গানটি ভালো লাগবে। গানটি লিখেছেন জহিরুল ইসলাম বাদল এবং সুর করেছেন হৃদয় সৈকত।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই জাতীয় আরো সংবাদ